বুধবার, নভেম্বর ২২, ২০১৭

আমাদের কণ্ঠস্বর

প্রধান ম্যেনু

তারুণ্যের সংবাদ মাধ্যম

থানায় আওয়ামী লীগ নেতাকে পিটুনি, প্রতিবাদে সড়ক অবরোধ

রাজশাহীতে থানার ভেতর এক আওয়ামী লীগ নেতাকে পিটিয়েছে পুলিশ। শুক্রবার বিকাল ৪টার দিকে জেলার গোদাগাড়ী মডেল থানায় এ ঘটনা ঘটে। পুলিশি লাঞ্ছনার শিকার ওই আওয়ামী লীগ নেতার নাম আবদুল মালেক। তিনি গোদাগাড়ী পৌরসভা আওয়ামী লীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি।

আবদুল মালেক জেলা আওয়ামী লীগেরও সদস্য ছিলেন। গোদাগাড়ী পৌরসভার সারেংপুর কলেজপাড়া এলাকায় তার বাড়ি। পুলিশ তাকে মারপিট করায় বিক্ষুব্ধ আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা রাত সাড়ে ৮টার দিকে উপজেলা সদর ডাইংপাড়া মোড়ে অবস্থান নিয়ে রাজশাহী-চাঁপাইনবাবগঞ্জ মহাসড়ক অবরোধ করেন।

এ সময় সড়কের দু’পাশে ঢাকা ও চাঁপাইনবাবগঞ্জমুখী বহু গাড়ি আটকে পড়ে। দীর্ঘ এলাকাজুড়ে যানজটের সৃষ্টি হয়। এ সময় বিক্ষুব্ধ নেতাকর্মীরা গোদাগাড়ীর ওসিসহ জড়িত সব পুলিশ কর্মকর্তাদের প্রত্যাহারের দাবি জানিয়ে স্লোগান দেন।

পরে রাত ৯টার দিকে জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আসাদুজ্জামান আসাদ এসে পরিস্থিতি শান্ত করেন।

ভুক্তভোগী আবদুল মালেক জানান, বর্তমানে রাজশাহী-চাঁপাইনবাবগঞ্জ মহাসড়ক সংস্কারের কাজ চলছে। শুক্রবার বিকাল সাড়ে ৩টার দিকে স্থানীয়রা অভিযোগ তোলেন, কাজের মান খুবই খারাপ। এ নিয়ে সারেংপুর কলেজপাড়া এলাকায় ঠিকাদারের লোকজনের সঙ্গে স্থানীয়দের কথা কাটাকাটি হয়। এ সময় ঠিকাদার ফোন করে পুলিশ ডাকেন। পুলিশ সারেংপুর মহল্লার শহিদুল ইসলাম নামে এক যুবলীগ নেতাকে ধরে থানায় নিয়ে যায়।

তিনি জানান, বিকালেই আমি স্থানীয় ছাত্রলীগ নেতা সুলতানুল বাবুকে নিয়ে বিষয়টি মীমাংসার জন্য থানায় যাই। পরে ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা হিপজুর আলম মুন্সি শহিদুলকে ছেড়ে দেন।

মালেক জানান, এরপর তারা থানা থেকে বের হয়ে আসছিলেন। এ সময় থানার উপ-পরিদর্শক আহসানুল হক ছাত্রলীগ নেতা সুলতানুল বাবুকে আটক করেন। তার যুক্তি- বাবুও ঠিকাদারদের সঙ্গে বাকবিতণ্ডা করেছিলেন। এ সময় আবদুল মালেক তাকে আটকে বাধা দেন। এক পর্যায়ে পুলিশের সঙ্গে তারও কথা কাটাকাটি শুরু হয়।

আবদুল মালেক বলেন, হঠাৎ তেড়ে গিয়ে থানার এসআই আহসানুল হক তার বাম গালে একটি থাপ্পর মারেন। আমি কিংকর্তব্যবিমূঢ় হয়ে যাই। এরপরই এএসআই শাহিন আলী কিল-ঘুষি মারতে শুরু করেন। আরও কয়েকজন দারোগা-কনস্টেবল মারধর করেন। আমি সবাইকে চিনি না। ওসির সামনেই এমন ঘটনা ঘটে। পরে ওসি আমাকে থানা থেকে বের করে দিয়ে চলে যেতে বলেন।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, রাতে বিক্ষুব্ধ নেতাকর্মীরা লাঠিশোটা নিয়ে ডাইংপাড়া মোড়ে অবস্থান নেন। খবর পেয়ে একটি পুলিশের একটি পিকআপ ওসিকে নিয়ে সেখানে যায়। এরপর গাড়ি থেকে ওসি নামলেই বিক্ষুব্ধরা পিকআপকে ধাওয়া দেন। এ সময় ওসিকে ফেলে রেখেই পিকআপটি থানার দিকে টান দেয়।

এরপর বিক্ষুব্ধ নেতাকর্মীরা ওসিকে ঘিরে ধরেন। ওসি তখন শামসুল হক নামে এক ব্যক্তির জুতার দোকানে গিয়ে ঢুকে পড়েন। এ সময় বিক্ষোভকারীরা তাকে অবরুদ্ধ করে রাখেন। পরে জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আসাদুজ্জামান আসাদ বিক্ষুব্ধ নেতাকর্মীদের শান্ত করে ওসিকে মুক্ত করেন।

এরপর অভিযুক্তদের শাস্তির আশ্বাস দিলে সড়ক অবরোধও তুলে নেন নেতাকর্মীরা।

এদিকে আবদুল মালেককে মারধরের ঘটনায় গোদাগাড়ী পৌর আওয়ামী লীগের সভাপতি অয়েজ উদ্দিন বিশ্বাস ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি বদিউজ্জামান ওসিসহ জড়িত সব পুলিশ কর্মকর্তার প্রত্যাহারের দাবি জানান।

তারা বলেন, চাঁপাইনবাবগঞ্জের শিবগঞ্জের বাসিন্দা এসআই আহসান শিবিরের আর সিরাজগঞ্জের বাসিন্দা এএসআই শাহিন ছাত্রদলের ক্যাডার ছিলেন। এ জন্যই তারা আওয়ামী লীগ নেতার গায়ে হাত তুলেছেন।

বিকালে এ বিষয়টি নিয়ে জানতে চাইলে ওসি হিপজুর মুন্সি বলেন, মারধরের ঘটনা ঘটেনি। ধাক্কাধাক্কির ঘটনা ঘটেছিল। তিনি ওই দুই দারোগাকে আবদুল মালেকের কাছ থেকে মাফ চাইয়ে নিয়েছেন।

তবে এসআই আহসানুল হক দাবি করেছেন, ধাক্কাধাক্কিও হয়নি। শুধু কথা কাটাকাটি হয়েছে।

এদিকে মোবাইল বন্ধ থাকায় এএসআই শাহিনের বক্তব্য পাওয়া যায়নি।

এই সংক্রান্ত আরো সংবাদ

গোদাগাড়ী প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা জেলে

সমাপনী বৃত্তির ফল জালিয়াতির অভিযোগে কারাগারে পাঠানো হয়েছে রাজশাহীর গোদাগাড়ীবিস্তারিত পড়ুন

এবার রাজশাহীতে এবার রান্নাঘরে ১২৫ গোখরা

রাজশাহীতে এবার রান্নাঘরে পাওয়া গেছে ১২৫টি গোখরা সাপ। গতকাল বৃহস্পতিবারবিস্তারিত পড়ুন

রাজশাহীতে ট্রেনের ফিরতি টিকিট বিক্রি শুরু

রাজশাহী রেলওয়ে স্টেশনে বৃহস্পতিবার (২২ জুন) থেকে শুরু হয়েছে ঈদপরবর্তীবিস্তারিত পড়ুন

  • রাজশাহীতে দেড় কেজি হেরোইনসহ দুই নারী গ্রেপ্তার
  • রাজশাহীতে ২য় বিয়ে করলেন মডেল রাউধার বাবা
  • মোটরসাইকেলে যাওয়ার পথে বজ্রপাতে স্কুলশিক্ষকের মৃত্যু
  • রাজশাহীতে ছেলের মাথায় রক্ত দেখে বাবার মৃত্যু
  • রাজশাহীতে কালবৈশাখীর হানা, জনদুর্ভোগ
  • নিহত আ’লীগ নেতার সই জাল করে ১৩ লাখ টাকা তুললেন বড় ভাই!
  • শিক্ষা সফরে ছাত্রীর সঙ্গে ছবি : শিক্ষকের জরিমানা
  • রাজশাহীতে চিকিৎসার নামে অসুস্থ নারীকে ধর্ষণ করেছে কবিরাজ !!
  • ইয়াবা কেনার সময় হাতেনাতে পুলিশের কাছে কলেজ অধ্যক্ষ আটক
  • রাজশাহীতে রেক্টিফাইড স্পিরিট পানে দুজনের মৃত্যু
  • এক মুঠো খাবারের জন্য হাসপাতালে বৃদ্ধ!