মঙ্গলবার, জানুয়ারি ২৩, ২০১৮

আমাদের কণ্ঠস্বর

প্রধান ম্যেনু

তারুণ্যের সংবাদ মাধ্যম

ধর্ষণে জন্ম নেয়া নাবালিকার শিশুটিকে বাঁচানো গেল না অবশেষে

শত চেষ্টার পরেও নাবালিকাকে ধর্ষণে জন্ম নেয়া সদ্যোজাত শিশুটিকে বাঁচানো গেল না । ৪৮ ঘণ্টার মাথায় মারা গেল মুম্বাইয়ের সেই নাবালিকা ধর্ষিতার সন্তান।

১৩ বছরের ওই নাবালিকাকে ধর্ষণ করেছিল তারই বাবার এক সহকর্মী। অস্বাভাবিক ভাবে মোটা হয়ে যাচ্ছে দেখে মেয়কে চিকিৎসকের কাছে নিয়ে যায় তার পরিবার। কিন্তু ততক্ষণে অনেক দেরি হয়ে গিয়েছে। সোনোগ্রাফি করে দেখা ২৭ মাসের অন্তঃসত্ত্বা সপ্তম শ্রেণির ওই কিশোরী। কিন্তু ভারতীয় দণ্ডবিধির ৩(২)বি ধারা অনুযায়ী ভ্রূণের বয়স ২০ সপ্তাহ হয়ে গেলে আর গর্ভপাত করানো যায় না। এর পরেই সুপ্রিম কোর্টের দ্বারস্থ হন ওই নাবালিকার পরিবার।

শেষমেশ আবেদনকারীর ইচ্ছেকে সম্মান জানিয়ে ৩২ সপ্তাহের অন্তঃসত্ত্বাকে গর্ভপাতের অনুমতি দেয় সুপ্রিম কোর্ট। ৬ সেপ্টেম্বর প্রধান বিচারপতি দীপক মিশ্রের বেঞ্চ নির্দেশ দিয়েছিল, অবিলম্বে গর্ভপাত করানো হোক নাবালিকার। কিন্তু প্রশ্ন ওঠে, ১৩ বছরের একটি নাবালিকার এই অবস্থায় গর্ভপাত করানো কতটা নিরাপদ তা নিয়েও।

চিকিৎসকদের একাংশ জানান, আট মাসের ভ্রুণ প্রায় পরিণত। গর্ভপাত করালে মায়ের প্রাণেরও ঝুঁকি থেকে যাবে অনেকটাই। অনেকের মত ছিল, গর্ভপাতের পাশাপাশি ঝুঁকি রয়েছে প্রসবেও। এরপরই মেডিক্যাল বোর্ডের রিপোর্ট দেখে সুপ্রিম কোর্টের কথা মতো, ‘টার্মিনেশন অব প্রেগন্যান্সি’ বা গর্ভাবস্থা শেষ করার পথ বেছে নেন চিকিৎসকেরা। সেই মতোই শুক্রবার মুম্বাইয়ের একটি সরকারি হাসপাতালে অস্ত্রোপচার করা হয় ওই কিশোরীর। একটি পুত্র সন্তানের জন্ম দেয় সে। জন্মানোর পরেই শিশুটিকে নিওনেটাল কেয়ার ইউনিটে ভর্তি করা হয়। চিকিৎসকেরা জানিয়েছিলেন, শরীরের অনেক অঙ্গপ্রত্যঙ্গই ঠিক মতো তৈরি হয়নি শিশুটির।

রবিবার থেকে তার অবস্থা খারাপ হতে শুরু করে। অক্সিজেন সহায়তা থেকে সরিয়ে তাকে ভেন্টিলেশনেও রাখা হয়, কিন্তু শেষরক্ষা হয়নি। রবিবারই মৃত্যু হয় ওই সদ্যোজাতের।

নাবালিকা-মা এখনও চিকিৎসাধীন। পুরোপুরি সুস্থ হওয়ার পরেই তাকে হাসপাতাল থেকে ছাড়া হবে।

এই সংক্রান্ত আরো সংবাদ

কোটি টাকার ‘দুর্নীতি’তে দুই খাদ্য কর্মকর্তা

রাজশাহীর তানোর উপজেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক নাজমুল হক এবং সদর খাদ্যবিস্তারিত পড়ুন

মানি লন্ডারিং | আপন জুয়েলার্সের ২ মালিকের মুক্তিতে বাধা নেই

মানি লন্ডারিং আইনে করা পৃথক তিন মামলায় আপন জুয়েলার্সের মালিকবিস্তারিত পড়ুন

অভিভাবককে বেঁধে পেটালেন শিক্ষকরাঃ দোষ অনিয়মের প্রতিবাদ

কক্সবাজার সদরের ঝিলংজা খরুলিয়া এলাকায় স্কুলের অনিয়মের বিষয়ে জানতে চাওয়ায়বিস্তারিত পড়ুন

  • এবার সর্বনাশ ! দেশের বাজারে অবাধে বিক্রি হচ্ছে ভারী ধাতু মিশ্রিত মাছ
  • ২১ নারী পোশাক কর্মী আহত বাসে ট্রাকের ধাক্কায়
  • সাবেক রাষ্ট্রদূত মারুফ জামান নিখোঁজ
  • যত বিয়ে, বিচ্ছেদ তার এক চতুর্থাংশ ময়মনসিংহে
  • দ্বিতীয় দিনের মতো জিজ্ঞাসাবাদে বেসিকের বাচ্চু
  • অস্ত্রসহ সন্দেহভাজন জঙ্গি আটক
  • ‘জবরদস্তি’ এবারও এসএসসির ফরম পূরণে বাড়তি টাকা আদায়
  • সন্তানকে মাঝে রেখে বাবা-মা ঘুমিয়ে পড়েন, চুরির অভিযোগ ঢাকা মেডিকেল থেকে
  • ২০ মাস পূর্ণ হয়েছে ২০ নভেম্বর, তনুর পরিবারকে ঢাকায় ডেকেছে সিআইডি
  • মুরগিকে অপহরণ করে ধর্ষণ করল কিশোর!
  • জুয়ায় বাধা : নাসিম হত্যার প্রধান আসামি গ্রেফতার
  • প্রসব ফুটপাতে, মাস পার হলেও সাজা হয়নি কারও