রবিবার, মে ১৯, ২০২৪

আমাদের কণ্ঠস্বর

প্রধান ম্যেনু

তারুণ্যের সংবাদ মাধ্যম

আন্ডার আর্ম বা বাহুর নিচের কালো দাগ ? দূর করার উপায়

অাপনি নারী বা পুরুষ যাই হোন না কেন, আপনার সহধর্মীনির দৃষ্টিনন্দন তথা ভালো লাগাতে ব্যঘাত সুষ্টি করে যে বিষয়গুলো, তার মধ্যে আপনার আর্ম এর নীচের কালো দাগ অন্যতম একটি। বিশেষ কিছু কারণে আপনার আন্ডার আর্ম বা বাহুর নিচের কালো দাগ সুষ্টি হয়ে থাকে। এছাড়াও আন্ডার আর্ম বা বগল কালো হলে স্লিভলেস ড্রেস পরা যায়না। শুধু তাই নয়, সুইমিংসুট পরতে গেলে অথবা পার্লারে বিভিন্ন ট্রিটমেন্ট নিতে গেলেও বিব্রত অবস্থায় পড়তে হয়। কিভাবে এই অবস্থা থেকে মুক্তি পাবেন তা জানার আগে এর কারণ জেনে নিন।

আন্ডার আর্ম বা বাহুর নিচের কালো দাগের কারণ:

০১. অতিরিক্ত ডিওডোরেন্ট বা এন্টিপারস্পাইরেন্ট ব্যবহারের ফলে :
এটা বিভিন্ন সময়ে প্রমাণিত হয়েছে যে ডিওডোরেন্ট এ যেসব কেমিক্যাল থাকে তা আন্ডার আর্ম বা বাহুর নিচ কালো হওয়ার জন্য দায়ী ।এই সব ডিওডোরেন্ট পিগমেন্টেশন করে যা কালো দাগ করে ।এই সমস্যা থেকে মুক্তির জন্য সেনসিটিভ ত্বকের জন্য তৈরি ডিওডোরেন্ট ব্যবহার করতে পারেন অথবা প্রাকৃতিক পদ্ধতিতে আন্ডার আর্ম বা বাহুর নিচের গন্ধ দূর করতে পারেন।

০২. সেভিং :
যখন আপনি আনডার আর্ম বা বাহুর নিচে রেজার ব্যবহার করেন তখন শুধুমাত্র ত্বকের উপরের লোমটুকুই কাটতে পারেন । গোঁড়া সহ লোম উঠে আসেনা ।তাই একটা কালো কালো ভাব থেকে যায় ।একই অবস্থা anne french বা veet নামক লোম দূর করা ক্রিম এর ক্ষেত্রেও ঘটে । যা শুধুমাত্র লোমগুলোকে ত্বকের সার্ফেস থেকে দূর করে ।এর গোঁড়া থেকে দূর করতে পারেনা ।এজন্য আন্ডার আর্ম বা বাহুর নিচের লোম দূর করার জন্য ওয়াক্সিং ভালো,কারণ এটি চুলের গোঁড়া সহ তুলে আনে ।

০৩. মৃত কোষ :
আন্ডার আর্ম এর ত্বকের মৃত কোষ জমা হয়ে সেই অংশ কালো করতে পারে । এজন্য এই মরা কোষগুলো দূর করা প্রয়োজন ।এই মরা কোষ দূর করার জন্য আপনি স্ক্রাব ব্যবহার করতে পারেন ।তবে স্ক্রাবটি যেন ল্যাকটিক এসিড সমৃদ্ধ হয় ।

০৪. ফ্রিকশন বা ঘর্ষণ :
যখন খুব টাইট পোশাক পরি তখন কাপড়ের সাথে আন্ডার আর্ম বা বাহুর নিচের ত্বকের ঘর্ষণের কারণে কালো দাগ হতে পারে ।এজন্য খুব টাইট পোশাক না পরে কিছুটা ঢিলেঢালা পোশাক পরা উচিৎ। পোশাক এমন হতে হবে যা গরমে আরামদায়ক এবং যার ভেতর দিয়ে বাতাস চলাচল করতে পারে।সাধারণত যাদের আন্ডার আর্ম বা বাহুর নিচে চর্বি বা মেদ থাকে তাদের কাপড়ের সাথে ঘর্ষণটা বেশী হয় ফলে কালো হয়ে যায় জায়গাটা ।তাই ওজন কমালে কিছুটা উপকার হবে ।

কালো আনডার আর্ম বা বাহুর নিচ থেকে মুক্তির উপায় :

চন্দন ও গোলাপজল :
একসাথে মিশিয়ে লাগান ।চন্দন এর ফর্সাকারী উপাদান দিয়ে ফর্সা করবে আর গোলাপ জল ত্বক রাখবে ঠান্ডা আর নরম ।

লেবুর রস:
এটি একটি খুবই উপকারী পদ্ধতি ।গোসলের আগে লেবু কেটে আন্ডার আর্ম বা বাহুর নিচে ঘষতে হবে। লেবু ন্যাচারাল বা প্রাকৃতিক ব্লিচিং হিসেবে কাজ করে।গোসলের পর ত্বক নরম করার জন্য ময়েশ্চারাইজিং ক্রীম লাগান ।

আলু এবং শসা :
আলু প্রাকৃতিক ব্লিচিং হিসেবে কাজ করে । আলু পাতলা করে কেটে আন্ডার আর্ম বা বাহুর নিচে ঘষতে পারেন বা আলুর রস বের করেও লাগাতে পারেন ।১৫ মিনিট পর ধুয়ে ফেলুন।একইভাবে শশা ব্যবহার করতে পারেন।

ফর্সাকারী মাস্ক :
কালো আন্ডার আর্ম বা বাহুর নিচ ফর্সা করার জন্য ঘরে বসেই তৈরি করতে পারেন মাস্ক ।
উপকরণ:-
আধা চা চামচ লবণ
১/৩ কাপ গোলাপ জল
১/৩ কাপ জনসন বেবি পাউডার ।
পদ্ধতি :- উপরের সব উপকরণ একসাথে মিশিয়ে নিন।যতক্ষণ নরম একটি মিশ্রণ না হয়।এটি আপনার আন্ডার আর্ম বা বাহুর নিচে লাগিয়ে ৩০ মিনিট রাখুন।এরপর ধুয়ে ফেলুন আর ভালো ফলাফল দেখুন প্রথম বার ব্যবহারেই ।এটি প্রতিবার ওয়াক্সিং এর পর পরই আপনার আন্ডার আর্ম বা বাহুর নিচে লাগাবেন ।

জাফরান মিশ্রণ :
এক চিমটি জাফরান ২ চামচ দুধে অথবা ক্রীমে মিশিয়ে শোবার সময় আন্ডার আর্ম বা বাহুর নিচে লাগান।পরদিন সকালে ধুয়ে ফেলুন।এটি শুধু বাহুর নিচের অংশ কে ফর্সাই করে না, জার্ম ও ব্যাকটেরিয়াও ধ্বংস করে।

ডিওডোরেন্ট কম পরিমাণে ব্যবহার করুন :
প্রাকৃতিক উপাদান ব্যবহার করে শরীরের গন্ধ কিছুদিনের জন্য দূর করুন ।বেকিং সোডা অল্প পানিতে দিয়ে আনডার আর্ম বা বাহুর নিচটা ধুয়ে ফেলুন।ডিওডোরেন্ট সরাসরি শরীরে না লাগিয়ে কাপড়ে লাগান।

ফর্সাকারী স্ক্যাব :
সেনসিটিভ ত্বকের জন্য তৈরি স্ক্রাব যেমন , nivea ,st lves & everyouth স্ক্রাব ব্যবহার করতে পারেন ।
জানলেন তো কিভাবে আন্ডার আর্ম বা বাহুর নিচের কালো রং দূর করবেন ।এবার তাহলে আর ভয় কিসের? দূর করুন কালো দাগ! নিজেকে করে তুলুন আকর্ষণীয় এবং আত্মবিশ্বাসী।

এই সংক্রান্ত আরো সংবাদ

ধনিয়া পাতার উপকারি গুণ

চিকিৎসকদের মতে, ধনে বা ধনিয়া একটি ভেষজ উদ্ভিদ যার অনেকবিস্তারিত পড়ুন

ওজন কমাতে যা খাওয়া যেতে পারে

আমাদের রান্নাঘরে খাবার তৈরির অনেক পণ্য  থাকে। সেই সবে এমনবিস্তারিত পড়ুন

প্রতিদিনের খাদ্যতালিকায় রসুন

রসুন আমাদের প্রতিদিনের রান্নার একটি গুরুত্বপূর্ণ অংশ। শুধুমাত্র খাবারের স্বাদবিস্তারিত পড়ুন

  • মৌসুমের সব রেকর্ড ভেঙে তাপমাত্রার পারদ উঠল ৪৩ ডিগ্রিতে
  • যেসব অঞ্চলে টানা ৩ দিন ঝড়বৃষ্টি
  • ২৪ ঘণ্টা না যেতেই ফের কমলো স্বর্ণের দাম
  • গরমে চুলের যত্ন নেবেন কীভাবে?
  • একলাফে সোনার দাম ভ‌রিতে কমলো ৩১৩৮ টাকা
  • কত দিন পর পর টুথব্রাশ বদলাবেন?
  • ত্বকের দাগ দূর করার ঘরোয়া উপায়
  • তরমুজ খেলে কি সত্যিই ওজন কমে?
  • মিস ওয়ার্ল্ড-২০২৪ জিতলেন ক্রিস্টিনা পিসকোভা
  • তিশা থেকে জয়া আহসান, কপালে বাঁকা টিপের সেলফির রহস্য কী?
  • ডিম সেদ্ধ নাকি ভাজা, কোন ভাবে খেলে মিলবে বেশি পুষ্টি
  • ছুটিতে ঘুরে আসুন ‘শ্যামল বাংলা’