শনিবার, জুলাই ১৩, ২০২৪

আমাদের কণ্ঠস্বর

প্রধান ম্যেনু

তারুণ্যের সংবাদ মাধ্যম

আমার আগে পরে

যে নারী চুল কাটাতে যাচ্ছেন, তিনি নাকি তাঁর জীবনটাই পাল্টে ফেলতে যাচ্ছেন। ফরাসি ফ্যাশন ডিজাইনার এবং বিশ্বখ্যাত ব্র্যান্ড শ্যানেলের প্রতিষ্ঠাতা কোকো শ্যানেল অন্তত তা-ই মনে করতেন। চুলের স্টাইল এতটাই গুরুত্ব বহন করে। চেহারা ও ব্যক্তিত্ব বদলে ফেলতে বেশি ভূমিকা রাখে এই চুলই। এরপর পোশাক বা সাজ। রূপবিশেষজ্ঞরা এমনটাই মনে করেন।

চুলের সাজে পরিবর্তন এনে বদলে ফেলা যায় পুরো লুকটাই।  মেকওভার শব্দটি শুনলে অনেকেই ভয় পান। কি না জানি করতে হবে। নাক, কান, চোখ, ঠোঁট—সবকিছুকে ঠিকঠাক জায়গামতো রেখেই চেহারাতে পরিবর্তন আনা সম্ভব। শুধু চুলগুলো সাজিয়ে নিতে হবে নতুন ঢঙে। রূপবিশেষজ্ঞ আফরোজা পারভীন বলেন, ‘সাজের মাধ্যমে চেহারায় কিছুটা পরিবর্তন আনা যায়। কিন্তু চুলে রং করা হলে বা নতুন কাট দিলে চেহারায় বেশ পরিবর্তন আসে।’ মেকওভার করার আগে নিজেকে বুঝে নেওয়ার বিষয়টি গুরুত্বপূর্ণ। আপনি পরিবর্তনটি কতটা বহন করতে পারবেন, সেটার ওপর নির্ভর করবে কীভাবে চুল কাটবেন বা রং করবেন। ব্যক্তিত্ব, পেশা, পরিবার—এ বিষয়গুলো মাথায় রেখে তবেই লুক পরিবর্তন করা উচিত বলে মনে করেন আফরোজা পারভীন।

সাজ: পারসোনা, পোশাক: যাত্রা ও ওপাল ফ্যাশন ওয়্যার, দিন ধরে রাখা লম্বা চুলে একঘেয়েমি আসতেই পারে। খুব বেশি ছোট করে ফেলতে না চাইলে মাঝারি দৈর্ঘ্যে নিয়ে আসতে পারেন। চুলের ঘনত্ব ও চুলের গঠনটাও এ ক্ষেত্রে অনেক গুরুত্বপূর্ণ। চুল পাতলা, ঘনত্ব কম হলে ভলিউম লেয়ারে কেটে ফেলতে পারেন। চুল ভারী হলে অলওভার লেয়ার করা যায়।

লম্বা কোঁকড়া চুল হলে লম্বার মধ্যে স্টেপ কাট বেছে নিতে পারেন। অনেকেই সফট লুক বহন করে থাকেন মাঝারি বা পিঠ পর্যন্ত কাটা চুলের মধ্যে। লুক বদলে ফেলতে চাইলে ছোট করে চুল কেটে ফেলতে পারেন। অনেকেই চেহারায় আধুনিক ভাব আনতে চান। ব্লান্ট কাট এ ক্ষেত্রে ভালো হবে। বয় কাট করালেও অনেক পরিবর্তন চলে আসবে।

চুলে রংও করতে পারেন। এতে করে নতুন একটা লুক তৈরি হয়। সাজার সময় এরপরে আর খুব একটা বেশি মেকআপের প্রয়োজন হবে না। চোখে লাগবে, এমন চড়া রংগুলো যেমন নীল, সবুজ, লাল, ম্যাজেন্টা, বেগুনি ইত্যাদি এখন চুলের আগাতে লাগানোর ট্রেন্ড চলছে। তবে আপনার ব্যক্তিত্বে সঙ্গে যাতে যায়, সেদিকেও খেয়াল রাখতে হবে। যাঁরা এটা বহন করতে পারবেন না বলে মনে করছেন, তাঁরা চাইলে পুরো চুলে রং অথবা হাইলাইট করতে পারেন।

রূপবিশেষজ্ঞ কানিজ আলমাস খান বলেন, ‘চলতি ফ্যাশন ট্রেন্ডের সঙ্গে অনেকেই চলতে চান। কিন্তু ফ্যাশন যেটাই থাকুক, সেটা ধারণ করতে পারারও বিষয় আছে। হালের ট্রেন্ড বহন করতে খুব অস্বস্তি মনে হলে মাঝামাঝি একটা পন্থা অবলম্বন করতে পারেন। এতে করে লুক পরিবর্তিত হয় কিন্তু আবার স্বকীয়তাও থাকে।’
পুরো চুলে রং করিয়ে লালচে হাইলাইট করিয়েছেন মাশিয়াতকিছুদিন আগেও ছিল ছোট চুলের ফ্যাশন। চলতি ফ্যাশন লম্বা চুলের দিকেই বলে জানান রূপবিশেষজ্ঞরা। কোঁকড়া চুলের অধিকারীদের চুল কাটার সময় কিছুটা একঘেয়েমির মধ্যেই পড়তে হয়।

স্টেপ স্টাইলে কাটাই এ ধরনের চুলের জন্য সবচেয়ে বেশি নিরাপদ। কারণ, লেয়ার বা ব্যাংগস এমন চুলে অতটা বোঝা যায় না। তবে লুক বদলে ফেলতে চাইলে কোঁকড়া চুলগুলোকে সোজা করে ফেলার স্টাইল তো আছেই। দরকার শুধু বাড়তি যত্ন। একটু ঢেউখেলানো চুল হলে স্টেপ লেয়ার স্টাইলে কাটতে পারেন। যাঁদের সোজা চুল, তাঁরা যদি চুলটাকে লম্বা রেখে কাটতে চান, তাহলে বেছে নিতে পারেন গ্র্যাজুয়েটেড লেয়ার, লম্বার মধ্যে স্টেপ লেয়ার। এ ছাড়া এখন ভলিউম শ্যাগ, পিক্সি কাট, বব কাট, ভলিউম শ্যাগ স্টাইল, ৭০ দশকের মতো করে ব্যাংগস কাটা বেশি চলছে।

পুরো চুলে রং করিয়ে লালচে হাইলাইট করিয়েছেন মাশিয়াতরূপবিশেষজ্ঞ ফারজানা মুন্নী বলেন, ‘একজন বিশেষজ্ঞের সঙ্গে কথা বলে চুল কাটা ভালো। চওড়া কপাল, ফোলানো গাল—অনেক কিছুই ঠিক করে ফেলা যায় চুল কাটার মাধ্যমে। বয়সটা কোনো বিষয় নয়। চুলের নতুন স্টাইলটি হওয়া উচিত কী ধরনের জীবন যাপন করছেন ও চেহারার ধরন কেমন, সেটার ওপর নির্ভর করে।’

চুল কাটার সময় চেহারার সঙ্গে মানাবে, এমন কাট দেওয়াটা নিরাপদ। কোন ধরনের পোশাক বেশি পরা হয়, সেটাও খেয়াল রাখতে হবে। মিউনিস ব্রাইডালের স্বত্বাধিকারী তানজিমা শারমীন বলেন, ‘একটা পোশাক যতটা লুক বদলে দেয়, তার চেয়ে চুল কাটাটা বেশি বদলে দেয়। ইমো, শ্যাগি কাটের সঙ্গে সালোয়ার-কামিজ বেশি মানাবে না। যারা সব সময় পশ্চিমা পোশাক পরছেন, তাঁদের হয়তো বেশির ভাগ কাটেই মানিয়ে যাবে। ফাংকি কাটেও মানাবে। যেমন আমার চুল কাটের সঙ্গে শাড়ি মানাবে কিন্তু কামিজ মানায় না। আমিও সেটা খুব ভালোভাবে বহন করতে পারি না।’

যাঁরা একটু কম ফোলানো চুল চান, তাঁদের জন্য ইন্টারনাল লেয়ারটা ভালো। গলার উচ্চতা কম হলে ছোট চুল ভালো লাগবে। গলা লম্বা হলে লম্বা চুল দেখতে ভালো লাগবে। যাঁদের চেহারা গোল ধরনের, তাঁরা লেয়ারের প্রথম কাটটা গলার কাছাকাছি থেকে করলে ভালো। পানপাতা চেহারার অধিকারীরা ব্যাংগস না করে গালের ওপর পড়ে থাকবে, এমনভাবে চুল কাটতে পারেন। ডিম্বাকার চেহারার জন্য ব্যাংগস ভালো। চারকোনা চেহারায় ব্যাংগসটা অতটা মানানসই নয়। ব্যাংগস রাখতে চাইলে ফ্রন্ট লেয়ারও রাখতে হবে। গোলমুখে যদি কপাল ছোট হয়, তাহলে ফ্রিনজেস করা যেতে পারে।
ব

এই সংক্রান্ত আরো সংবাদ

মানবদেহে আদার অনেক উপকার

আমাদের দিনে কয়েকবার রঙিন খাবার খাওয়া উচিত, কিন্তু আপনি কিবিস্তারিত পড়ুন

হোটেল ঘরে বিছানার চাদর সাদা হয় কেন ?

বেড়াতে গিয়ে হোটেলের ঘরে ঢুকে প্রথম যে বিষয়টি নজরে আসে,বিস্তারিত পড়ুন

ধনিয়া পাতার উপকারি গুণ

চিকিৎসকদের মতে, ধনে বা ধনিয়া একটি ভেষজ উদ্ভিদ যার অনেকবিস্তারিত পড়ুন

  • ওজন কমাতে যা খাওয়া যেতে পারে
  • প্রতিদিনের খাদ্যতালিকায় রসুন
  • আমলকি কখনো স্বাস্থ্যের জন্য ‘বিপজ্জনক’ হয়ে ওঠে
  • বাসি দই ও পান্তা ভাতের আশ্চর্যজনক উপকারিতা
  • স্বাদে ও পুষ্টিগুণে ভরপুর সবজি হলো লাউ
  • মৌসুমের সব রেকর্ড ভেঙে তাপমাত্রার পারদ উঠল ৪৩ ডিগ্রিতে
  • যেসব অঞ্চলে টানা ৩ দিন ঝড়বৃষ্টি
  • ২৪ ঘণ্টা না যেতেই ফের কমলো স্বর্ণের দাম
  • গরমে চুলের যত্ন নেবেন কীভাবে?
  • একলাফে সোনার দাম ভ‌রিতে কমলো ৩১৩৮ টাকা
  • কত দিন পর পর টুথব্রাশ বদলাবেন?
  • ত্বকের দাগ দূর করার ঘরোয়া উপায়