শুক্রবার, মে ২৪, ২০২৪

আমাদের কণ্ঠস্বর

প্রধান ম্যেনু

তারুণ্যের সংবাদ মাধ্যম

নেতা-কর্মীরা খালেদা জিয়ার সাক্ষাতের অপেক্ষায়

বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া গত তিন দিন লন্ডনে অবস্থান করলেও তাঁর সাক্ষাৎ পাননি দলীয় নেতা-কর্মীরা। নেতা-কর্মীদের সঙ্গে সভা বা সাক্ষাতের কোনো সময়সূচিও ঘোষণা করা হয়নি। এ অবস্থায় খালেদা জিয়ার সাক্ষাৎ পেতে অধীর আগ্রহে অপেক্ষায় আছেন দলটির নেতা-কর্মীরা।

খালেদা জিয়ার সফর উপলক্ষে বাংলাদেশ থেকে বিএনপির কয়েকজন নেতা ইতিমধ্যে লন্ডনে এসেছেন। আজ শুক্রবার বিকেল পর্যন্ত তাঁদের সঙ্গেও খালেদা জিয়ার দেখা হয়নি বলে জানা গেছে। এসব নেতাও অপেক্ষায় আছেন কখন খালেদার সঙ্গে সাক্ষাতের জন্য ডাক পড়ে। এদিকে ঠিক হয়নি চিকিৎসকের সঙ্গে সাক্ষাতের দিনক্ষণও। একান্ত পারিবারিক আবহে খালেদা গত তিন দিন কাটিয়েছেন। গত বুধবার সকালে তিনি লন্ডনে আসেন। এবার তিনি এখানেই কোরবানির ঈদ করবেন।

যুক্তরাজ্য বিএনপির বিভিন্ন পর্যায়ের নেতা-কর্মীদের সঙ্গে কথা বলে জানা যায়, খালেদা জিয়া তাঁর ছেলে তারেক রহমানের বাসায় আছেন। সেটা আবাসিক এলাকা হওয়ার কারণে সেখানে গিয়ে ভিড় জমানো সম্ভব হচ্ছে না। হোটেলে অবস্থান করলে তারা নিশ্চয়ই সাক্ষাতের জন্য ভিড় জমাতেন। বিএনপির সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান তারেক রহমানের উপদেষ্টা আবু সালেহ মো. সায়েম প্রথম আলোকে বলেন, ‘দীর্ঘদিন পর চেয়ারপারসন লন্ডনে এসেছেন। এ

র মধ্যে তাঁর ছোট ছেলের মৃত্যুসহ রাজনৈতিকভাবে তাঁকে নানা ধকল সইতে হয়েছে। আমরা নেত্রীর সঙ্গে দেখা করার জন্য অধীর আগ্রহ নিয়ে অপেক্ষা করছি।’
যুক্তরাজ্য বিএনপির দপ্তর সম্পাদক নাজমুল হোসেন জাহিদ বলেন, ‘এটা নেত্রীর ব্যক্তিগত সফর। তাঁর চিকিৎসার বিষয়টি সবচেয়ে জরুরি। কিন্তু হাজার হাজার নেতা কর্মী জানতে চাচ্ছেন কখন নেত্রী তাদের সামনে হাজির হবেন।’

যুক্তরাজ্য বিএনপির সাধারণ সম্পাদক কয়সর এম আহমদ বলেন, গত বুধবার খালেদা জিয়াকে অভ্যর্থনা জানাতে শত শত নেতা-কর্মী হিথরো বিমানবন্দরে হাজির হয়েছিলেন। কথা ছিল বিমানবন্দর থেকে বের হয়েই নিকটবর্তী সোফিটেল হোটেলের একটি মিলনায়তনে তিনি নেতা কর্মীদের সঙ্গে শুভেচ্ছা বিনিময় করবেন। কিন্তু নেতা-কর্মীদের প্রচণ্ড ভিড়ের কারণে শেষ পর্যন্ত সেটি সম্ভব হয়নি।

নেতা-কর্মীরা যাতে অনুমতি ছাড়া তারেক রহমানের বাসার দিকে না যান, সে বিষয়ে কড়া নির্দেশনা রয়েছে বলে জানালেন যুক্তরাজ্য বিএনপির সভাপতি এম এ মালেক। তিনি বলেন, দীর্ঘ প্রায় আট বছরের বেশি সময় হয়ে গেছে বিএনপির শীর্ষ দুই নেতা এক মঞ্চে দাঁড়াননি। দুই নেতাকে নিয়ে তাঁরা শিগগিরই একটি সমাবেশ আয়োজনের চেষ্টা করছেন।

এই সংক্রান্ত আরো সংবাদ

এমপি আনারের মূল হত্যাকারী আমানুল্লাই চরমপন্থি শিমুল ভূঁইয়া

শিমুল ভূঁইয়া ঝিনাইদহ-৪ আসনের সংসদ সদস্য আনোয়ারুল আজিম আনারের মূলবিস্তারিত পড়ুন

ড. ইউনূসের জামিনের ৪ জুলাই পর্যন্ত মেয়াদ বাড়লো

৬ মাসের সাজাপ্রাপ্ত নোবেলজয়ী অর্থনীতিবিদ ড. ইউনূসের শ্রম আইন লঙ্ঘনেরবিস্তারিত পড়ুন

সংসদ সদস্য নয়নের বিরুদ্ধে বক্তব্য ছিল কুরুচিপূর্ণ: বাক্কি বিল্লাহ

লক্ষ্মীপুর-২ আসনের সংসদ সদস্য অ্যাডভোকেট নূরউদ্দিন চৌধুরী নয়ন (এমপির) বিরুদ্ধেবিস্তারিত পড়ুন

  • দেশটা এখন মগের মুল্লুকে পরিণত হয়েছে : মির্জা ফখরুল  
  • আওয়ামী লীগ ক্ষমতা দখল করে আরও হিংস্র হয়ে উঠেছে
  • চড়াই-উতরাই থাকবে হতাশ হবেন না: প্রধানমন্ত্রী
  • শেখ হাসিনার স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস আজ
  • দেশের জনগণ পানির ন্যায্য হিস্যা থেকে বঞ্চিত : মির্জা ফখরুল
  • আওয়ামী লী‌গ ভিসানীতির পরোয়া করে না : ওবায়দুল কাদের
  • কমরেড রনো চির জাগরূক থাকবেন
  • বিএনপি আন্দোলন অব্যাহত রাখার ঘোষণা 
  • মোহাম্মদপুরের গজনবী রোডে ঢাকা মহানগর উত্তর আওয়ামী লীগের ‘শান্তি ও উন্নয়ন’ সমাবেশ
  • উপজেলা নির্বাচন প্রত্যাখ্যান করেছে জনগণ: রিজভী
  • আহসানউল্লাহ মাস্টার হত্যা স্বাধীনতা বিরোধীদের নীলনকশার অংশ : মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রী
  • বিএনপি নেতাকর্মীরা বগুড়ায় আ.লীগ নেতার নির্বাচনী প্রচারণায়