বুধবার, জুন ১৯, ২০২৪

আমাদের কণ্ঠস্বর

প্রধান ম্যেনু

তারুণ্যের সংবাদ মাধ্যম

ফুটবল উৎ​সবের অপেক্ষায় চট্টগ্রাম

ভদ্রলোকের আদি বাড়ি গোপালগঞ্জের কোটালীপাড়া। জন্ম কলকাতায়। আগেও অনেকবার পূর্বপুরুষদের জন্মভিটায় পা পড়েছে তাঁর। গতকাল আবার এলেন তিনি। নাম বিশ্বজিৎ ভট্টাচার্য। কলকাতা ইস্টবেঙ্গলের কোচ। গোপালগঞ্জে শিকড়, এ রকমই আরেক সন্তানের নামে আয়োজিত ফুটবল টুর্নামেন্টে অংশ নিতে।
আগামীকাল থেকে চট্টগ্রাম এমএ আজিজ স্টেডিয়ামে বসছে শেখ কামাল কাপ আন্তর্জাতিক ফুটবল টুর্নামেন্টের আসর।

চট্টগ্রামের ইতিহাসের প্রথম এই আন্তর্জাতিক টুর্নামেন্টে অংশ নেওয়া দলগুলোর প্রায় সবারই পা পড়েছে কাল চট্টগ্রামে। সকালে ইস্টবেঙ্গল ও কলকাতা মোহামেডান চট্টগ্রামে এসেছে একই বিমানে চড়ে। একই সঙ্গে উঠেছে হোটেল পেনিনসুলায়। বিকেলেই অনুশীলনে নেমে পড়েছে ইস্টবেঙ্গল। অনুশীলন করার কথা ছিল কলকাতা মোহামেডানের, যদিও তারা তা বাতিল করেছে শেষ মুহূর্তে।

পুলিশ লাইন মাঠে বিশ্বজিৎ ভট্টাচার্য পুরো দল নিয়ে কিছুক্ষণ ঘাম ঝরিয়েছেন। কলকাতা লিগের টানা ছয়বারের চ্যাম্পিয়ন দলটি অবশ্য কিছুটা খর্বশক্তির। মূল দলের ১৩ জন ফুটবলার ইন্ডিয়ান সুপার লিগে খেলছেন। এই দলে অনূর্ধ্ব-২৩ বছর বয়সী ফুটবলারেরই আধিক্য। তবু শিরোপা জয়ের ব্যাপারে আশাবাদী বিশ্বজিৎ ভট্টাচার্য, ‘এখানে যেসব খেলোয়াড় এসেছে তারা মূল টিমেও খেলে। আছে চারজন বিদেশি।

আমরা চ্যাম্পিয়ন হওয়ার জন্যই এসেছি। তীর্থের কাকের মতো আমরা তাকিয়ে আছি শিরোপার দিকে।’ পূর্বপুরুষের দেশে এসে আবহাওয়া-ভাষা কোনোটিই তাঁর কাছে সমস্যা নয়। বেশ ফুরফুরেই লাগছে বিশ্বজিৎকে, ‘কোটালীপাড়ায় আমার পূর্বপুরুষ থাকত। অনেকবার এসেছি। আবহাওয়া আমাদের দেশের মতো। কোনো সমস্যা হচ্ছে না।’

আগামীকাল শেখ কামাল কাপ ফুটবলের উদ্বোধনী দিনেই স্বাগতিক চট্টগ্রাম আবাহনীর মুখোমুখি কলকাতার ইস্ট বেঙ্গল। কাল চট্টগ্রামের দামপাড়া পুলিশ লাইন মাঠে ইস্ট বেঙ্গল মগ্ন নিবিড় অনুশীলনে l জুয়েল শীলউদ্বোধনী দিনে ইস্টবেঙ্গল মুখোমুখি হবে টুর্নামেন্ট আয়োজক চট্টগ্রাম আবাহনীর। এর আগে বিকেলে ঢাকা আবাহনী ও করাচি ইলেকট্রিসিটি এফসির ম্যাচ দিয়ে টুর্নামেন্টের পর্দা উঠবে। পাকিস্তানের এই দলটিও ঢাকা থেকে চট্টগ্রাম পৌঁছেছে বিকেলে।

একই সঙ্গে চট্টগ্রাম এসেছে শ্রীলঙ্কার সলিড এফসি। সন্ধ্যায় আফগানিস্তানের স্পিন গর বাজানও বন্দর নগরীতে নোঙর করেছে। ঢাকা আবাহনী ও ঢাকা মোহামেডানের চট্টগ্রামে পৌঁছানোর কথা ছিল রাতে।

টুর্নামেন্ট নিয়ে প্রচার-প্রচারণা-হাঁকডাক ক্রমেই বাড়ছে। দর্শক টানতে চলছে নানা প্রচেষ্টা। নগরের বিভিন্ন স্থানে উঠে গেছে টুর্নামেন্টের বিজ্ঞাপনী বিলবোর্ড। চলছে রোড শো, মাইকিং। বিকেলে রাজপথে হলো ‘পথ ফুটবল’। সবকিছুই প্রচারণার অংশ। এই টুর্নামেন্ট দেশে ফুটবলের নতুন জাগরণ ঘটাবে বলেই বিশ্বাস আয়োজকদের।

দর্শকখরায় ভুগতে থাকা ফুটবল আবার জেগে উঠবে, এই টুর্নামেন্ট দিয়ে এমন আশাবাদ সিটি মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দীনের। ‘এই টুর্নামেন্টে দর্শক আসবে আমার বিশ্বাস। কারণ আমরা দর্শকদের জন্য সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান, লটারিসহ নানা ব্যবস্থা রেখেছি। আশা করি ফুটবল হারানো ঐতিহ্য ফিরে পাবে’—বললেন টুর্নামেন্ট কমিটির চেয়ারম্যান।

এই সংক্রান্ত আরো সংবাদ

আফগানিস্তানকে বিশাল ব্যবধানে হারালো ওয়েষ্ট ইন্ডিজ

মঙ্গলবার (১৮ জুন) গ্রস আইসলেটে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের গ্রুপ ‘সি’ এরবিস্তারিত পড়ুন

নেপালকে হারিয়ে সুপার এইটে বাংলাদেশ

নেপালের বিরুদ্ধে ২১ রানে জয়ে টি২০ বিশ্বকাপে সুপার এইট নিশ্চিতবিস্তারিত পড়ুন

অস্ট্রেলিয়ার জয়ে ইংল্যান্ড সুপার এইটে

বিশ্বকাপ টি২০ ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়ার বনাম স্কটল্যান্ড ম্যাচে কোনো অঘটন ঘটেনি।বিস্তারিত পড়ুন

  • বিশ্বকাপে একমাত্র ক্রিকেটার হিসেবে যে রেকর্ড গড়লেন সাকিব
  • বাংলাদেশের সেরা আটে যাওয়ার লড়াই আজ 
  • টিম ম্যানেজমেন্টকে মধুর বিড়ম্বনায় ফেলছেন তানজিম
  • শ্রীলঙ্কা-নেপাল ম্যাচ বৃষ্টিতে পরিত্যক্ত
  • জিততে জিততে বাংলাদেশ হেরে গেল
  • ডালাসে শ্রীলঙ্কাকে ২ উইকেটে হারিয়ে বিশ্বকাপে শুভসূচনা বাংলাদেশের
  • বিশ্বকাপে উগান্ডাকে উড়িয়ে আফগানদের শুরু 
  • হার দিয়ে বিশ্বকাপের প্রস্তুতি সারলো বাংলাদেশ 
  • ফাইনালে হেরে কাঁদলেন রোনালদো
  • ভোটগ্রহণ শেষে চলছে গণনা
  • সানরাইজার্স-নাইট রাইডার্স আইপিএল ফাইনাল রোববার
  • আরও এক হারে সিরিজ খোয়ালো বাংলাদেশ