বুধবার, জুন ১৯, ২০২৪

আমাদের কণ্ঠস্বর

প্রধান ম্যেনু

তারুণ্যের সংবাদ মাধ্যম

মামলা না নিয়ে ধর্ষক পরিবারের সঙ্গে মিমাংশা হতে বলছে পুলিশ !

কুড়িগ্রামের রাজীবপুর উপজেলায় কলেজ ছাত্রীকে ডেকে নিয়ে অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে ধর্ষণ করার চেষ্টার ঘটনায় থানায় অভিযোগ দেয়ার পরও পুলিশ মামলা নিচ্ছে না। অভিযোগের পর মামলা রেকর্ড করা হবে, আজ না কাল এভাবে দীর্ঘ ১৮দিন পর মামলা না নিয়ে ধর্ষক পরিবারের সঙ্গে মিমাংশা হওয়ার কথা বলছে পুলিশ। সোমবার (৩ অক্টোবর) সাংবাদিকদের কাছে এমন অভিযোগ করা হয়েছে নির্যাতিত পবিবারের পক্ষ থেকে।

নির্যাতিত মেয়ের পিতা আব্দুল বারেক অভিযোগ করে বলেন, ‘আমি থানায় বিচার চেয়ে অভিযোগ দিলাম। প্রথমে পুলিশ খুব তৎপর ছিল। মনে অইল বিচার পামু। কিন্তু থানার ওসি স্যার এহন কয়, মেয়ে নিয়া বাড়াবাড়ি না কইরা কিছু টাকা নিয়া মিলমিশ হয়ে যাও। কোনো মামলা নেয়া হবে না। আসামিরা ওসি স্যারেক অনেক টাকা দিছে। এদিকে আসামির ভয়ে মেয়ে আমার কলেজে যাওয়া ছেড়ে দিয়েছে। নাওয়া খাওয়াও করে না সময় মতো। মেয়েকে নিয়া খুব বিপদে আছি।’

ঘটনাসূত্রে জানা যায় যে , উপজেলার ধুলাউড়ি গ্রামের আব্দুল বারেক এর কলেজ পড়ুয়া মেয়েকে গত ১৫ সেপ্টেম্বর বিকেল ৫টার দিকে বাড়ি থেকে ডেকে নিয়ে জোরপূর্বক ধর্ষণের চেষ্টা চালায় একই গ্রামের হযরত আলীর বখাটে ছেলে নাছির উদ্দিন (২২) ,এসময় নাছিরের সঙ্গে আরিফ হোসেন (২৪) নামে আরেক বখাটেও উপস্থিত ছিল। তারা দুজন অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে মেয়েটিকে। কিন্তু মেয়ের চিৎকারে স্থানীয় মানুষ এগিয়ে এসে মেয়েকে উদ্ধার করে।

ঘটনার দিনই থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করা হয়। পুলিশ ঘটনা তদন্তে গিয়ে গ্রামাবাসির স্বাক্ষ্য গ্রহণও করে। কিন্তু পরবর্তিতে মোটা অংকের অর্থের বিনিময়ে ঘটনাটি ধামাচাপা দিতে শুরু করেছে থানা পুলিশ এমন ধারনাগত অভিযোগ করছে নির্যাতিত পরিবারটি।

এ প্রসঙ্গে রাজীবপুর উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান শফিউল আলম জানান, ঘটনাটি সত্য বলেই এলাকাবাসির কাছে শুনেছি । কিন্তু পুলিশ কি কারনে মামলা নিচ্ছে না তা খুবই রহস্যজনক।

মামলা না নেওয়া ও পুলিশের প্রতি নির্যাতিত পবিবারের অভিযোগ প্রসঙ্গেঃ রাজীবপুর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) পৃথীশ কুমার সরকার বলেন, ‘ঘটনার পরপরই অভিযোগ পেয়েছি সত্য কিন্তু অভিযুক্তরা তো এলাকায় নেই। আমার মনে হয়েছে ছেলে আর মেয়ের মধ্যে প্রেম সর্ম্পক ছিল। যা হয়েছে দু’জনের ইচ্ছেতেই। ধর্ষণ হয়নি আর নারী নির্যাতনেরও প্রমাণ নেই। এ কারনে মামলা নেয়া হয়নি।’ আসামিদের কাছ থেকে অর্থ গ্রহণ এবং মিমাংশার বিষয়টি তিনি অস্বীকার করে বলেন, আমি তাদের মিমাংশার কথা বলিনি। তবে আদালতে মামলা করার কথা বলেছি তাদের ।

এই সংক্রান্ত আরো সংবাদ

কুড়িগ্রামে তিন উপজেলার ৫০ হাজার মানুষ পানিবন্দি

কুড়িগ্রামে ব্রহ্মপুত্র, ধরলার ও তিস্তার পা‌নি বেড়ে যাওয়ায় জেলার তিনবিস্তারিত পড়ুন

কুড়িগ্রামে সড়ক অবরোধ প্রত্যাহার

কুড়িগ্রামে মটর মালিক সমিতির সাবেক সাধারণ সম্পাদক লুৎফর রহমান বকসীরবিস্তারিত পড়ুন

স্কুলছাত্রীর সঙ্গে পরকীয়া, জামায়াত নেতাকে গণধোলাই

কুড়িগ্রামের ফুলবাড়ীতে স্কুলছাত্রীর সঙ্গে পরকীয়া হাতেনাতে ধরা পড়ার পর একবিস্তারিত পড়ুন

  • বিএসএফের গুলিতে বাংলাদেশি নিহত
  • এবার কুড়িগ্রামে ছাত্রাবাস থেকে শিক্ষার্থীর লাশ উদ্ধার
  • কুড়িগ্রামে ধরলার ভাঙনে দুই শতাধিক ঘরবাড়ি বিলীন
  • কুড়িগ্রামে ছয় ইউনিয়নে ‘প্রথম’ ভোট কাল
  • কুড়িগ্রামে ইজতেমায় দুই মুসল্লির মৃত্যু
  • বিয়ে থেকে পালাতে গিয়ে ট্রাকচাপায় স্কুলছাত্রী নিহত!
  • বিদ্যুৎস্পৃষ্টে একই পরিবারের মা-ছেলে ও পুত্রবধূর মৃত্যু..!!
  • শ্বশুরবাড়িতে গৃহবধূকে পিটিয়ে হত্যার অভিযোগ
  • মৃত্যুর আগে হলেও মুক্তিযোদ্ধার স্বীকৃতি চান সফিয়ার
  • বিকেলে খেলতে গেল দুই শিশু, রাতে পুকুরে ভাসল লাশ
  • কুড়িগ্রামে এক জনকে কুপিয়ে হত্যা