বৃহস্পতিবার, জুলাই ২৫, ২০২৪

আমাদের কণ্ঠস্বর

প্রধান ম্যেনু

তারুণ্যের সংবাদ মাধ্যম

‘মা হওয়ার পর যে ৫টি কাজ করবো না ভেবেছিলাম’

মানুষের মনে অনেক ভাবনাই থাকে। তারা কি করবে বা না করবে ইত্যাদি। নারীরা ভাবেন মা হওয়া আগে বা পরে তারা কি কি করবেন এবং করবেন না। এখানে এমনই এক মা তুলে ধরেছেন তার মনের কথা। এই বিশেষজ্ঞ ঠিক করেছিলেন তিনি মা হওয়ার পর কি কি করবেন না।

অনেক মায়ের মনে অসংখ্য বিষয় থাকতে পারে। তবে এলাইন কোগানের পরিকল্পনায় থাকা বা না থাকা ৫টি কাজের তালিকা নিজেই দিয়েছেন এখানে। আবার চিন্তার সঙ্গে বাস্তবতা যে বদলে যায় তাও তুলে ধরেছেন তিনি। এগুলো তার ভাষাতেই জেনে নিন।

১. যে শিশুটির জন্য প্রচুর খেলনা কিনবো। এসব খেলনা এমন হবে যে তা জীবনের বিভিন্ন অবস্থা ও বাস্তবতার প্রতিনিধিত্ব করবে। আমি যেন আমার বাচ্চাটিকে পৃথিবীর সব সুন্দর জিনিসের সঙ্গে পরিচয় করিয়ে দিতে পারি। সবচেয়ে সুন্দার প্রাণীদেরসহ দৃশ্যমান সবকিছু সে আগে থেকেই দেখবে।

যা ঘটেছে : আগত সন্তানের জন্য যে খেলনাটি কিনলাম তার নাম ‘মমিন’ যার কোনো অস্তিত্বই এই পৃথিবীতে নেই। জন্মের পর প্রথম উপহার পেলো একটি বিশাল জিরাফ। একে অদ্ভুত দর্শন কমলা গরু বলেই চিনলো বাচ্চাটি। এর নাম দেওয়া হলো মহাকাশের গরু।

২. ঠিক করলাম আমার সন্তানের অর্জনগুলো কখনোই ফেসবুকের মাধ্যমে প্রচার করবো না। ছোট বা বড় কোরটাই নয়। অবশেষে একদিন বছর শেষে সে সাঁতার শেখার কোর্স থেকে প্রথম একটি ব্যাজ পেলো। তখন তার বয়স মাত্র ৩ মাস। আসলে এমনিতেই পুলে নিয়ে গিয়ে তাকে এটা সেটা করাতাম। এ কারণে একটা ব্যাজ জুটে গেলো। ব্যাজটি পাওয়ামাত্র কয়েক সেকেন্ডের মধ্যে তা ফেসবুকে দিয়ে দিলাম। ছড়িয়ে গেলো পরিচিতদের মাঝে।

৩. ঠিক করেছিলাম তাকে সব সময় স্বাস্থ্যকর খাবার ছাড়া আর কিছুই খাওয়াবো না।

যা ঘটলো : আমি অন্যদিকে মন দিলাম। তাকে নানা ধরনের বই কিনে দিতে থাকলাম। ন্যাশনাল হেলথ সার্ভিসেস’র নির্দেশনা অনুযায়ি স্তনপান করাতে থাকলাম। তবে ছয় মাস কোনো দুধ পান করাইনি। এতে কি উপকার হলো তাও বুঝতে পারলাম না। তাও এক শতাংশ শিশুর ক্ষেত্রে এমনটা ঘটে। একটা সময় বুঝতে পারলাম, আমার ছেলের অন্যান্য খাবারের প্রতি কোনো আগ্রহ নেই। দুই একটা খাবারই সে খেতে চাইতো। এর মধ্যে সবার প্রথমে ছিল আইসক্রিম।

৪. আমি সন্তানের সঙ্গে সব সময় কথা বলবো এবং তাকে বই পড়ে শোনাবো বলে ভেবেছিলাম। বছর দুয়েক পর তার মুখের কথা অনেক বেশি স্বাবলীল হবে এবং সে সুন্দরভাবে কথা বলবে।

যা ঘটলো : এভাবে শুরুও করলাম। কিন্তু এক সপ্তাহ না যেতেই ঘটনা পুরো বদলে গেলো। আমরা দুজনই একটি বলে আটকে গেলাম।

৫. আমি কখনোই বাচ্চাকে নিয়ে পাবলিক ট্রান্সপোর্টে উঠবো না। বিশেষ করে এটা অন্যদের জন্যে দারুণ বিরক্তিকর হয়ে ওঠতে পারে যারা খুব বিরক্ত করে বা চিৎকার করে। পাবলিক ট্রান্সপোর্টে ওঠার পর বাচ্চারা যদি চিৎকার করতে থাকে তবে এর চেয়ে বিরক্তিকর কিছু হয় না।

আমি তেমন মা-ই হতে চায়। কিন্তু সম্ভব হয়ে ওঠেনি। তাহলে নিজের নিয়ম ভাঙার মাধ্যমে আমি কি শিখেছি? প্রশ্ন রাখেন এলাইন। আসলে মা হিসাবে বেশ কিছু দূর এগিয়ে যাওয়া ছাড়া আগে থেকেই কিছুই বুঝে ওঠা সম্ভবপর হয় না। আপনার আগত সন্তান সম্পর্কে কোনো ধারণাই আপনার নেই। সে কি ভালোবাসবে বা কি অপছন্দ করবে তা কখনোই আপনি এত আগেই বুঝে নিতে পারবেন না। তবে পরিকল্পনার বাইরেও এই মাতৃত্বকে আমি দারুণ উপভোগ করছি। সূত্র : হাফিংটন পোস্ট

এই সংক্রান্ত আরো সংবাদ

মানবদেহে আদার অনেক উপকার

আমাদের দিনে কয়েকবার রঙিন খাবার খাওয়া উচিত, কিন্তু আপনি কিবিস্তারিত পড়ুন

হোটেল ঘরে বিছানার চাদর সাদা হয় কেন ?

বেড়াতে গিয়ে হোটেলের ঘরে ঢুকে প্রথম যে বিষয়টি নজরে আসে,বিস্তারিত পড়ুন

ধনিয়া পাতার উপকারি গুণ

চিকিৎসকদের মতে, ধনে বা ধনিয়া একটি ভেষজ উদ্ভিদ যার অনেকবিস্তারিত পড়ুন

  • ওজন কমাতে যা খাওয়া যেতে পারে
  • প্রতিদিনের খাদ্যতালিকায় রসুন
  • আমলকি কখনো স্বাস্থ্যের জন্য ‘বিপজ্জনক’ হয়ে ওঠে
  • বাসি দই ও পান্তা ভাতের আশ্চর্যজনক উপকারিতা
  • স্বাদে ও পুষ্টিগুণে ভরপুর সবজি হলো লাউ
  • মৌসুমের সব রেকর্ড ভেঙে তাপমাত্রার পারদ উঠল ৪৩ ডিগ্রিতে
  • যেসব অঞ্চলে টানা ৩ দিন ঝড়বৃষ্টি
  • ২৪ ঘণ্টা না যেতেই ফের কমলো স্বর্ণের দাম
  • গরমে চুলের যত্ন নেবেন কীভাবে?
  • একলাফে সোনার দাম ভ‌রিতে কমলো ৩১৩৮ টাকা
  • কত দিন পর পর টুথব্রাশ বদলাবেন?
  • ত্বকের দাগ দূর করার ঘরোয়া উপায়