বুধবার, এপ্রিল ১৭, ২০২৪

আমাদের কণ্ঠস্বর

প্রধান ম্যেনু

তারুণ্যের সংবাদ মাধ্যম

সুরেশ রায়না যা বলতে চান..

স্বাভাবিকভাবেই ভারতীয় সংবাদমাধ্যমে চলছে কাটাছেঁড়া। ধেয়ে আসছে সমালোচনার তির। মানতে পারছে না ভারতীয় সমর্থকেরাও। কিন্তু সুরেশ রায়না বলছেন, এক ম্যাচ হেরেই ‘জাত গেল জাত গেল’ রব তোলার কোনো কারণ নেই। এখনো ভারত অনেক ভালো দল। আর সেটা তাঁরা প্রমাণ করে দিতে চান বাকি দুই ম্যাচেই।

বাংলাদেশকে যেন একটা প্রচ্ছন্ন হুমকিই দিলেন ভারতীয় ব্যাটসম্যান। বিসিসিআই টিভিকে রায়না বলেন ‘দিনে দিনে তাদের (বাংলাদেশ) উন্নতি হচ্ছে। তবে আমরাও অন্য পর্যায়ের দল। আজ (গতকাল) আমরা ভালো খেলিনি। এখনো দুটো ম্যাচ বাকি। দাপটের সঙ্গে ফিরে আসতে আমাদের সর্বশক্তি দিয়ে ঝাঁপিয়ে পড়তে হবে। এক ম্যাচ হেরেই আমরা খারাপ দল হয়ে যাইনি। রবি ভাই (শাস্ত্রী) মাত্রই বলেছেন, লড়াই করে ফিরে এসেই নিজেদের জাত চেনাতে হবে।’

ভারতকে ভালো একটা সূচনা এনে দিয়েছিলেন দুই ওপেনার শিখর ধাওয়ান ও রোহিত শর্মা। এর পরই বিপর্যয়। ৩৩ রানেই ফিরে গেলেন ৫ ভারতীয় ব্যাটসম্যান। তখনই জয় দেখতে পাচ্ছিলেন মাশরাফির। এর পর বাংলাদেশের স্বপ্ন ও স্বপ্নপূরণের মাঝে খানিকক্ষণ বাধা হয়ে দাঁড়িয়েছিলেন রায়না। রবীন্দ্র জাদেজাকে নিয়ে ষষ্ঠ উইকেটে তুলেছিলেন ৬০ রান। কিন্তু মুস্তাফিজুর রহমানের দাপুটে বোলিংয়ে সেই প্রতিরোধটুকুও ভেঙে চুরমার!

রায়না অবশ্য মেনে নিচ্ছেন, ‘তারা প্রতিটি বিভাগেই (ব্যাটিং-বোলিং-ফিল্ডিং) আমাদের হারিয়েছে।’ ৬৩ রানে সেট ব্যাটসম্যান রোহিত ও ৪০ রানে থিতু হওয়া রায়নাকে ফিরিয়ে বাংলাদেশকে আনন্দে ভাসিয়েছেন মুস্তাফিজ। রায়না নিজেদের কাঠগড়ায় দাঁড় করিয়ে বললেন, ‘এর পরও বলব, মুস্তাফিজ যে পাঁচ উইকেট নিয়েছে, সেগুলো স্লোয়ার বলে। আমাদের সেট ব্যাটসম্যানদের ফিরিয়েছে। প্রথম রোহিত, পরে আমি। যখন রবীন্দ্র জাদেজা এবং আমি ব্যাটিং করছিলাম, মনে হচ্ছিল জুটিটা যদি পাঁচ কিংবা আরও কয়েক ওভার বেশি টেনে নিয়ে যেতে পারি, তাহলেও জিততে পারব।’

মূল নায়ক মুস্তাফিজ হলেও রায়না মনে করেন ম্যাচের ছবি বদলে দিতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা ছিল আরেক তরুণ তাসকিন আহমেদের। ৬ ওভারে ২১ রানে পেয়েছেন ২ উইকেট। তবে উইকেটের বিচারে তাসকিনকে মূল্যায়ন করা যাবে না। শিখর ধাওয়ান ও বিরাট কোহলিকে ফিরিয়ে বাংলাদেশের গুরুত্বপূর্ণ দুটো ব্রেক-থ্রু এনে দিয়েছেন এ ডানহাতি পেসারই। রায়না তাই বললেন, ‘আমাদের তাড়া করে জেতা উচিত ছিল। বিশেষ করে আমাদের যে ব্যাটিং লাইনআপ। তবে শিখর ও বিরাটকে ফিরিয়ে তাসকিন তাদের যে দুটো ব্রেক-থ্রু এনে দিয়েছিল, তাতেই ম্যাচের চেহারা বদলে গিয়েছে। এরপর আমি আর জাদ্দু (জাদেজা) ছাড়া আর ভালো কোনো জুটি গড়তে পারিনি। এটিই আমাদের ভুগিয়েছে।’

এই সংক্রান্ত আরো সংবাদ

মুস্তাফিজকে স্বাগত জানাল চেন্নাই সুপার কিংস

আগামী ২২ মার্চ পর্দা উঠছে বিশ্বের জনপ্রিয় ক্রিকেট লিগ ইন্ডিয়ানবিস্তারিত পড়ুন

তানজিদ-রিশাদের তাণ্ডবে সিরিজ জয় বাংলাদেশের

টস জিতে ব্যাট নেওয়া শ্রীলঙ্কা জানিত লিয়ানাগের সেঞ্চুরিতে ভর করবিস্তারিত পড়ুন

দুই নারী আম্পায়ারকে নিয়োগ দিচ্ছে বিসিবি

দেশের ক্রিকেটে নারীদের অগ্রযাত্রা চলছে। নিগার সুলতানা জ্যোতির দল দাপটেরবিস্তারিত পড়ুন

  • মিস ওয়ার্ল্ড প্রতিযোগিতার ফাইনালে বাংলাদেশের নীলা
  • সিরিজ বাঁচার লক্ষ্যে
  • ক্রিকেটার ও সংসদ সদস্য সাকিব আল হাসান ফুটওয়্যারের ব্যবসায় নামছেন
  • বিপিএল চ্যাম্পিয়ন তামিমের ফরচুন বরিশাল
  • মোস্তাফিজকে ছেড়ে দিল মুম্বাই
  • গেইল ছাড়াই বাংলাদেশে আসছে উইন্ডিজ
  • পাকিস্তানের জালে বাংলাদেশের মেয়েদের ১৭ গোল
  • পুত্র সন্তানের বাবা হলেন ইমরুলও
  • এ বিজয় আমাদের : প্রধানমন্ত্রী
  • পাকিস্তানকে উড়িয়ে ফাইনালে বাংলাদেশ
  • সপরিবারে এশিয়া কাপে নান্নু, খালি বাসায় চোরদের হানা
  • যে কদিন মাঠের বাইরে থাকতে হবে তামিমকে