সোমবার, মে ২০, ২০২৪

আমাদের কণ্ঠস্বর

প্রধান ম্যেনু

তারুণ্যের সংবাদ মাধ্যম

সমকামীদের অধিকার নিয়ে কাজ করতেন জুলহাজ

সোমবার কলাবাগানে দুর্বৃত্তের চাপাতির আঘাতে খুন হওয়া জুলহাজ মান্নান বাংলাদেশে সমকামীদের অধিকার আদায়ে কাজ করতেন।

সোমবার রাজধানীর কলাবাগানে জুলহাজ মান্নানের ফ্ল্যাটে ঢুকে তার সঙ্গে বন্ধু মাহবুব রাব্বী তনয়কেও কুপিয়ে হত্যা করে কয়েক যুবক। হামলাকারীরা ‘আল্লাহু আকবর’ বলতে বলতে চলে যায় বলে প্রত্যক্ষদর্শীরা জানিয়েছেন।

সমকামীদের অধিকারের স্বীকৃতি পেতে পশ্চিমা দেশেও যেখানে বিরূপ পরিস্থিতির মুখোমুখি হতে হয়, সেখানে বাংলাদেশের মতো রক্ষণশীল সমাজে তা যে আরও কঠিন ছিল, তা নানা সময়ে বলে গেছেন ‍জুলহাজ।

বিশ্বের প্রধান কোনো ধর্মেই সমকামিতাকে স্বীকার করা হয় না।

আন্দোলন-সংগ্রামের পর বিশ্বের দুই ডজনের মতো দেশে সমকামীরা অধিকার আদায় করতে পারলেও বাংলাদেশে বিষয়টি নিয়ে প্রকাশ্যে কথা বলা শুরু হয় সম্প্রতি।

বাংলাদেশে সমকামীদের অধিকারের কথা বলতে ২০১৪ সালে ‘রূপবান’ নামে একটি সাময়িকী প্রকাশ শুরু হয়, যার সম্পাদনা পরিষদে যুক্ত ছিলেন ৩৫ বছর বয়সী জুলহাজ।

পত্রিকাটির বছর পূর্তি উপলক্ষে পরের বছরের জানুয়ারিতে বিবিসি বাংলাকে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে তিনি বলেছিলেন, ‘বাংলাদেশে সমকামীরা অদৃশ্য জীবনযাপন করে, কিন্তু আমরা জানাতে চাই যে এই সমাজেই আমরা আছি এবং আমরা আপনাদের পরিবারেই সদস্য।’

‘রূপবান সমকাম নয়, বরং সমপ্রেমে বিশ্বাসী মানুষের ভালবাসার অধিকারের বিষয়টি তুলে ধরতে চায়,’ দাবি করে এধরনের পত্রিকা প্রকাশে সমস্যায় পড়ার কথাও বলেছিলেন যুক্তরাষ্ট্রের বৈদেশিক উন্নয়ন সংস্থা ইউএসএআইডির কর্মসূচি কর্মকর্তা জুলহাজ।

ইউএসএআইডিতে যোগ দেওয়ার আগে যুক্তরাষ্ট্র দূতাবাসের প্রটোকল অ্যাসিটেন্ট হিসেবে কাজ করেছিলেন জুলহাজ।

‘রূপবান’র উদ্যোগে পহেলা বৈশাখে ‘রংধনু যাত্রা’ শিরোনামে শোভাযাত্রার উদ্যোগ এবারও নেওয়া হয়েছিল। কিন্তু পুলিশ তা আটকে দেয়।

বাংলাদেশের সমকামীদের অধিকার প্রতিষ্ঠায় ‘অচলায়তন ভাঙার’ কথাও বলেছিলেন জুলহাজ।

তিনি বলেছিলেন, ‘বাংলায় একটি প্রবাদ রয়েছে, শিশু না কাঁদলে মাও দুধ দেয় না। আমি দৃঢ়ভাবে বিশ্বাস করি, এই ইস্যুটির সমাধানে বাংলাদেশের এলজিবিটি কমিউনিটির বের হয়ে সামনে এগিয়ে আসা উচিৎ।’

তিনি আরও বলেছিলেন, ‘অনেকে এর নেতিবাচক প্রতিক্রিয়া এবং ফল সম্পর্কে বলবেন, কিন্তু আমরা যদি বের হয়ে না আসি আর আমাদের দাবির বিষয়ে উচ্চকিত না হই, তাহলে কীভাবে আমাদের গ্রহণ না করায় দায় কীভাবে সমাজ ও রাষ্ট্রকে দিতে পারি।’

জুলহাজ মান্নান পড়াশোনা করেছেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের আন্তর্জাতিক সম্পর্ক বিভাগে। ২০০৩ সালে বিশ্ববিদ্যালয় থেকে বের হওয়ার পর ২০০৭ সালে থেকে যুক্তরাষ্ট্র দূতাবাসে প্রটোকল অ্যাসিস্টেন্ট হিসেবে কাজ শুরু করেন তিনি। এরপর তিনি যোগ দেন ইউএসএআইডিতে।

২০০৩ সালে প্রতিষ্ঠিত সমকামী, হিজরা এবং মানবাধিকার নিয়ে কাজ করা ‘বয়েজ অব বাংলাদেশ’ নামে একটি সংগঠনের সঙ্গেও কাজ করেছেন জুলহাজ।

কলাবাগানের লেকসার্কাস রোডের আছিয়া নিবাস নামে ছয়তলা ওই একটি বাড়ির দ্বিতীয় তলার ফ্ল্যাটে ৯০ বছর বয়সী মা সখিনা খাতুনকে নিয়ে থাকতেন জুলহাজ।

নিহত জুলহাজের বাবা আবদুল মান্নান সাবেক সরকারি কর্মকর্তা। তার বাড়ি চাঁদপুরের শাহরাস্তিতে।

দুই ভাই ও এক বোনের পরিবারে জুলহাজ ছিলেন সবার ছোট। তার বড় ভাই ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের সাবেক সহ সভাপতি মিনহাজ মান্নান ইমন। মেজ ভাই যুক্তরাষ্ট্রপ্রবাসী।

মাকে নিয়ে যে বাড়িতে থাকতেন জুলহাজ, সেখানেই বিকাল ৫টার দিকে খুনিরা হানা দেয়। তাদের চাপাতির কোপে জুলহাজ ও তনয় প্রাণ হারান ঘটনাস্থলেই।

নিহত তনয় (২৬) নাট্য সংগঠন লোক নাট্যদলে কাজ করতেন। পিটিএ নামে একটি প্রতিষ্ঠানে তিনি ‘শিশু নাট্য প্রশিক্ষক’হিসাবে কাজ করতেন বলে তার টুইটার অ্যাকাউন্টে বলা হয়েছে।

তাদের কারা হত্যা করেছে, সে বিষয়ে কিছু নিশ্চিত করতে পারেনি পুলিশ। তবে খুনের ধরন দেখে জঙ্গিদেরই সন্দেহ করছেন সংশ্লিষ্টরা।

এই সংক্রান্ত আরো সংবাদ

বাংলাদেশ অর্থনীতি সমিতির সভাপতি খলীকুজ্জমান, সম্পাদক আইনুল

বাংলাদেশ অর্থনীতি সমিতির কার্যনির্বাহী কমিটির নির্বাচনে সভাপতি ড. কাজী খলীকুজ্জমানবিস্তারিত পড়ুন

উপজেলা নির্বাচনের ২য় ধাপে আইনশৃঙ্খলা রক্ষায় ৪৫৭ প্লাটুন বিজিবি মোতায়েন

৬ষ্ঠ উপজেলা পরিষদ নির্বাচন অবাধ, সুষ্ঠু ও শান্তিপূর্ণভাবে অনুষ্ঠানের লক্ষ্যেবিস্তারিত পড়ুন

  • সবুজ ও জলবায়ু অভিঘাত মোকাবিলায় সম্মিলিত প্রচেষ্টা একান্তই জরুরি: স্থানীয় সরকার মন্ত্রী
  • মেট্রোরেলে ভ্যাট বসানোর সিদ্ধান্ত ভুল: ওবায়দুল কাদের
  • ম্যাসেজ টু কমিশনার (M2C) : রাস্তার অবৈধ দোকান সরানো হলো
  • শিল্পকলা পুরস্কার পেলেন ১৩ জন আলোকচিত্র শিল্পী
  • ‘আমলাতন্ত্রকে ভেঙে গণমুখী বাজেট তৈরির আহ্বান’
  • চড়াই-উতরাই থাকবে হতাশ হবেন না: প্রধানমন্ত্রী
  • দাম বাড়ছেই ডিমের
  • শেখ হাসিনার স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস আজ
  • নিরাপদে যুক্তরাষ্ট্রে পৌঁছালো বাংলাদেশ দল
  • নীতি সহায়তা যুক্ত হচ্ছে রফতানিতে
  • ৪ হাজার কোটির খুলনা-মোংলা রেলপথ প্রস্তুত 
  • বাকৃবি গবেষকের সাফল্য এই প্রথম সুস্বাদু দেশীয় শিং মাছের জিনোম সিকুয়েন্স উদ্ভাবন